বাংলাদেশ এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের ৪৫ দেশের মধ্যে দ্রুততম প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে

0
368

পিভিউ ডেস্ক :   এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) বলেছে, ৪৫টি দেশ নিয়ে গঠিত এশিয়া প্যাসিফিক অর্থনীতিগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ সবচেয়ে দ্রুত অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে।
আজ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে হস্তান্তর করা এশীয় উন্নয়ন আউটলুকে এডিবি বলেছে, ২০১৮ অর্থবছরে বাংলাদেশ ৭ দশমিক ৯ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে যা ১৯৭৪ সালের পর সবচেয়ে দ্রুত সম্প্রসারণ।
বাংলাদেশে এডিবি’র আবাসিক পরিচালক মনমোহন পরকাশ আজ সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রীর সংসদ ভবনস্থ কার্যালয়ে শেখ হাসিনার কাছে এশীয় উন্নয়ন আউটলুক (এডিও) হস্তান্তর করেন।
প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।
এডিবি তাদের এডিও’তে আভাস দিয়েছে যে, বাংলাদেশ ২০১৯ ও ২০২০ অর্থবছরে ৮ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করবে, যা হবে একটি নতুন রেকর্ড।
এডিও’তে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ এশীয় প্যাসিফিক অঞ্চলে দ্রুততম প্রবৃদ্ধি অর্জন অব্যাহত রাখবে।’
এডিবি’র বার্ষিক প্রকাশনা এডিও এশিয়া ও প্যাসিফিক অঞ্চলের ৪৫টি দেশের অর্থনৈতিক কর্মকা- মূল্যায়ন ও পূর্বাভাস দিয়ে থাকে।
এতে বলা হয়, এশিয়ার অধিকাংশ দেশের প্রবৃদ্ধি হবে মাঝারি। ২০১৯ সালে এটি হবে ৫ দশমিক ৭ শতাংশ এবং ২০২০ সালে ৫ দশমিক ৬ শতাংশ, যা ২০১৭ সালে ছিল ৬ দশমিক ২ শতাংশ ও ২০০৮ সালে ছিল ৫ দশমিক ৯ শতাংশ।
তবে দক্ষিণ এশিয়া শ্লথ প্রবৃদ্ধির প্রবণতা কাটিয়ে ২০১৯ সালে ৬ দশমিক ৮ শতাংশ ও ২০২০ সালে ৬ দশমিক ৯ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করবে।
এডিও’তে বলা হয়, এই প্রবৃদ্ধির গুরুত্বপূর্ণ নিয়ামকগুলো হচ্ছে : শক্তিশালী নেতৃত্ব, সুশাসন, স্থিতিশীল সরকার ও অব্যাহত রাজনৈতিক শান্তিপূর্ণ অবস্থা, সুষ্ঠু সামষ্টিক অর্থনৈতিক নীতিমালা ও সঠিক উন্নয়ন অগ্রাধিকার।
এতে উচ্চ সরকারি বিনিয়োগ, জোরালো ভোগ চাহিদা, বিনিয়োগে প্রতিদ্বন্দ্বিতা, উন্নত বিদ্যুৎ সরবরাহ ও বেসরকারি খাতের ঋণের ক্ষেত্রে উচ্চ প্রবৃদ্ধিকে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির চালিকা শক্তি হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here